সোমবার ৪ মার্চ ২০২৪
হরতাল-অবরোধ অর্থহীন
গুরুদাসপুরে শ্রমিকের হাটে ভিড়
আখলাকুজ্জামান, গুরুদাসপুর
প্রকাশ: বুধবার, ২৯ নভেম্বর, ২০২৩, ৭:৫২ PM
দফায় দফায় চলছে বিএনপির হরতাল-অবরোধ। এতে বিপাকে পড়েছেন সাহেব আলীদের মতো খেটে খাওয়া মানুষ। হরতাল-অবরোধে সড়কে পরিবহন চলাচল থেমে থাকলেও সাহেব আলীদের পেটের ক্ষুধা থেমে থাকেনি। হরতাল-অবরোধ তাই ওদের কাছে অর্থহীন। জীবিকার টানে প্রতিবন্ধকতা পেরিয়ে শ্রম বিক্রির জন্য তারা হাজির হন গুরুদাসপুর উপজেলাধীন বনপাড়া-হাটিকুমরুল মহাসড়কের নয়াবাজার শ্রমিকের হাটে।

গুরুদাসপুরের নয়াবাজারে প্রতিদিন ভোরের আলো না ফুটতেই বসে শ্রমিকের হাট। শ্রম বিক্রির জন্য এই হাটে এসে কৃষকের কাছে নিজেকে বিক্রি করেছেন সাহেব আলী, আনেছা, রহিমারা। সকালের মিষ্টি শীতে শরীরটা চাদরে মোড়ানো। হাতে কাস্তে-কোদাল। কাঁদে ধান বাহনের বাক ইত্যাদি সরঞ্জামাদি নিয়ে অন্যদের মতো ষাটোর্ধ্ব দিনমজুর মুনু মিয়াও নিজেকে হাটে তুলেছেন শ্রম বিক্রির জন্য। দিনমুজুর সাহেব আলী, আনেছা, রহিমা, নরেশদের বাড়ি সিরাজগঞ্জের হরিণচরা ও খালখোলা এলাকায়। সময় তখন ভোর সাড়ে পাঁচটা। কিছুটা কুয়াশা, হিমেল হওয়ার সঙ্গে হরতাল অবরোধের মতো প্রাণঘাতী প্রতিকূলতা ছাপিয়ে ঝুঁকি নিয়ে কিভাবে তারা শ্রমিকের হাটে এসেছেন তা জানালেন।

সাহেব আলী জানান, আগে ঢাকা থেকে ফেরা পণ্যবাহী ট্রাক, মাছের গাড়ি, টেম্পো, ভটভটি, ভ্যান, পিকআপে চড়ে সীমিত ভাড়ায় শ্রমিকের হাটে আসতেন তারা। এখনও সেসব পরিবহনেই আসেন। তবে হরতাল-অবরোধের কারণে ২০ টাকার কাছে তিনগুণ পরিবহন ভাড়া গুনতে হচ্ছে। সবচেয়ে বড় সমস্য হলো ককটেল-বোমার ভয়। ভয় ট্রাকে আগুন লাগারও।   

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, প্রায় একযুগ ধরে নাটোরের গুরুদাসপুর উপজেলার ধারাবারিষা ইউনিয়নের নয়াবাজারে ‘বনপাড়া-হাটিকুমরুল মহাসড়ক’ ঘেঁষে শ্রমিকের হাট বসে। এই হাটে শুধু যে সাহেব আলীরা এসেছেন তা নয়। জীবিকার তাগিদে আশপাশের কয়েকটি জেলা থেকে কয়েক হাজার শ্রমিক এসেছেন শ্রম বিক্রি করতে। শ্রমিকের এই কাতারে রয়েছেন নারী-পুরুষ, শিশুসহ ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর মানুষরাও। 

তাড়াশের মাঝগাঁও থেকে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর শত শত ওরাঁও সম্প্রদায়ের নারী-পুরুষও এখানে এসেছেন। এদের দলনেতা শ্যামা ওরাঁও জানান, রসুন রোপণ, ধানকাটাসহ সব কাজই তারা করে থাকেন। নিজের খেয়ে জনপ্রতি মজুরিপান ৩৫০ টাকা। কিন্তু হরতাল-অবরোধ চলায় শ্রমিকের হাটে আসতে তাদের বেশ ভোগান্তিতে পড়তে হচ্ছে। তবুও পেটের তাগিদে ঝুঁকি নিয়েই তারা এই হাটে আসেন শ্রম বিক্রি করতে।

কৃষি বিভাগ ও স্থানীয় কৃষকদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, দক্ষিণ চলনবিলের গুরুদাসপুর, বড়াইগ্রাম, সিংড়া, সিরাজগঞ্জের তাড়াশ ও পাবনার চাটমোহর উপজেলায় একযোগে রবি শস্যের আবাদ শুরু হয়। চলনবিলের পানি নামার সঙ্গে সঙ্গেই জেগে উঠে আবাদি জমি। ধান কাটার পর রসুন, ভুট্টা, সরিষাসহ রবিশস্য আবাদে ব্যস্ত হয়ে পড়ে কৃষক। এসব কাজে স্থানীয় শ্রমিকের তুলনায় কম মজুরিতে শ্রমিকের হাটে পাওয়া যায় বহিরাগত শ্রমিক।

গত মঙ্গলবার ভোরে নয়াবাজারের শ্রমিকের হাটে গিয়ে দেখা গেল, গুরুদাসপুর-বড়াইগ্রাম ছাড়াও তাড়াশ, সলঙ্গা ও উল্লাপাড়া, বগুড়া, শেরপুর উপজেলা এলাকার শ্রমিকরা দলবেঁধে এখানে জমায়েত হয়েছেন। এসব শ্রমিকদের সবাই এসেছেন ট্রাক, নছিমন কিংবা অটোভ্যানে। সবার গায়েই রয়েছে শীতের পোশাক, হাতে কাস্তে, কোদাল ও ধান বহনের জন্য বাক। কৃষক তাদের চাহিদামতো শ্রমিক দর দাম মিটিয়ে সরাসরি মাঠে নিয়ে যায়।

হাফিজুল ইসলামসহ পাঁচ কৃষকের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, বিনাহালে রসুন রোপণ, সেখানে লারা (ধানের খড়) বিছানো ও ধানকাটাসহ জমি তৈরির কাজ করানো হয় বহিরাগত এসব শ্রমিক দিয়েই। স্থানীয় শ্রমিকের মজুরি ৬০০ টাকা। অথচ একই কাজ করে বহিরাগত শ্রমিকদের দিতে হয় ৩৫০ থেকে ৪০০ টাকা। তবে সকাল ও দুপুরে তাদের খাবার দেয় গৃহস্থরা। তুলনামূলক কম মজুরিতে কাজ করায় এসব শ্রমিকের চাহিদা দিন দিন বেড়েই চলেছে।

ধারাবারিষা ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান আব্দুল মতিন জানান, শুধু নয়াবাজার নয়, বনপাড়া-হাটিকুমরুল মহাসড়ক ঘেঁষে মশিন্দা ইউনিয়নের হাঁসমারি ও বড়াইগ্রামের মানিকপুর পয়েন্টেও এ রকম শ্রমিকের হাট বসছে প্রায় একযুগ ধরে। 

গুরুদাসপুর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা হারুনর রশীদ বলেন, সময়মতো বহিরাগত দিনমজুর পাওয়ার সুবাদে এলাকার মানুষ ঠিকঠাকভাবে জমি চাষাবাদ করতে পারছেন। 

আজকালের খবর/ওআর  








সর্বশেষ সংবাদ
শিল্পী সমিতির বনভোজনে হাতাহাতি!
১০ মার্চ থেকে ঢাকায় গরুর মাংস বিক্রি হবে ৬০০ টাকায়
গাউসিয়া টুইন পিকের রুফটপ রেস্টুরেন্ট ভেঙে দিলো রাজউক
বেইলি রোড ট্র্যাজেডি : উচ্চ পর্যায়ের কমিটি গঠন হাইকোর্টের
আমাদের সবগুলো সূচকই বাড়ছে, হতাশার কিছু নেই: অর্থমন্ত্রী
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
রাজধানীজুড়ে বিভিন্ন রেস্তোরাঁয় অভিযান, আটক ৩৫
বিজিবি সদস্যদের চেইন অব কমান্ড মেনে চলার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর
অভিযোগ করে ব্যর্থ হয়ে মুন্সীগঞ্জে মেয়র প্রার্থীর সংবাদ সম্মেলন
কন্ট্রাক্ট ফার্মিংয়ে দেশি কৃষিবিদ ও কৃষকদের নিয়োগের প্রস্তাব
আমি সার্বিকভাবে মেয়রকে সহযোগিতা করতে চাই: এমপি হাফিজ উদ্দীন আহম্মেদ
Follow Us
সম্পাদকমণ্ডলীর সভাপতি : গোলাম মোস্তফা || সম্পাদক : ফারুক আহমেদ তালুকদার
সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : হাউস নং ৩৯ (৫ম তলা), রোড নং ১৭/এ, ব্লক: ই, বনানী, ঢাকা-১২১৩।
ফোন: +৮৮-০২-৪৮৮১১৮৩১-৪, বিজ্ঞাপন : ০১৭০৯৯৯৭৪৯৯, সার্কুলেশন : ০১৭০৯৯৯৭৪৯৮, ই-মেইল : বার্তা বিভাগ- [email protected] বিজ্ঞাপন- [email protected]
কপিরাইট © আজকালের খবর সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | Developed By: i2soft